ফাতওয়া  নং  ২০৯

ভারত থেকে বেআইনিভাবে আনা বাইক ব্যবহারের হুকুম কী? -মুফতি আবু ‍মুহাম্মাদ আব্দুল্লাহ আলমাহদি (হাফিযাহুল্লাহ)

ভারত থেকে বেআইনিভাবে আনা বাইক ব্যবহারের হুকুম কী? -মুফতি আবু ‍মুহাম্মাদ আব্দুল্লাহ আলমাহদি (হাফিযাহুল্লাহ)

পিডিএফ ডাউনলোড করুন

ওয়ার্ড ডাউনলোড করুন

ভারত থেকে বেআইনিভাবে আনা বাইক ব্যবহারের হুকুম কী?

 

প্রশ্ন:

ভারত থেকে বেআইনিভাবে আনা বাইক ব্যবহারের হুকুম কী? সাধারণত একটি বাইক কিনতে সব খরচাদিসহ এক লাখ বা বাইক ভেদে আরও বেশি লাগে। কিন্তু এ বাইকগুলো ২০-২৫ হাজার হলেই কেনা যায়। আমার জানার বিষয় হলো, এগুলো ক্রয় বিক্রয় করা এবং ব্যবহার করার হুকুম কী?

প্রশ্নকারী-আবদুর রহমান

 

উত্তর:

بسم الله الرحمن الرحيم

الحمد لله والصلاة والسلام على من لا نبي بعده وعلى آله وصحبه ومن والاه

প্রশ্নোক্ত বাইক ক্রয়ে আপনি যদি শরীয়ত সম্মতভাবে লেনদেন করে থাকেন, তাহলে তা ব্যবহার করা এবং ক্রয় বিক্রয় করা সবই বৈধ। ট্যাক্স ফাঁকি দেয়ার কারণে কোনোটাই অবৈধ হবে না এবং একারণে কোনো গুনাহও হবে না। বরং কারো ট্যাক্স ফাঁকি দেয়ার সামর্থ্য থাকলে তাগুত সরকারকে এসব অন্যায় ট্যাক্স দেয়া থেকে বিরত থাকা জরুরি। কারণ, প্রচলিত ট্যাক্স-ব্যবস্থা সম্পূর্ণ জুলুম ও অন্যায়ের ওপর প্রতিষ্ঠিত, যার মূলোৎপাটনে সচেষ্ট হওয়া আমাদের সকলের দায়িত্ব। এবিষয়ে আরও বিস্তারিত জানতে “বর্তমান তাগুত সরকারকে ট্যাক্স দেওয়া কি জায়েজ হবে?” এই শিরোনামে সাইটে প্রকাশিত ফতোয়াটি দেখতে পারেন। লিঙ্ক: https://fatwaa.org/2021/01/03/2027/

والله تعالى أعلم

আবু মুহাম্মাদ আব্দুল্লাহ আলমাহদি (উফিয়া আনহু)

০৮-০৩-১৪৪৩ হি.

১৬-১০-২০২১ ঈ.